আরপিও সংশোধনের প্রস্তাব মন্ত্রিসভায় অনুমোদন

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৪:১১ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৯, ২০১৮ | আপডেট: ৪:১১:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৯, ২০১৮

সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এ অনুমোদন দেয়া হয়। বৈঠকের পর সচিবালয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

নির্বাচনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহারের সুযোগ রেখে সংশোধিত গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশের (আরপিও) খসড়ায় নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

এর আগে আইন সংস্কারের লক্ষ্যে নির্বাচন কমিশনার কবিতা খানমের নেতৃত্বে একটি কমিটি করা হয়। আরপিও সংস্কারের বিষয়ে মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের মতামত নেয়া হয়। মাঠ কর্মকর্তা ও সংলাপে পাওয়া সুপারিশ পর্যালোচনা করে এই কমিটি সুপারিশ তৈরি করে।

এরপর গত ৩০ আগস্ট নির্বাচন কমিশনের (ইসি) এক সভায় আরপিও সংশোধনীর প্রস্তাব চূড়ান্ত করা হয়। এরপর ভেটিংয়ের (পরীক্ষা-নিরীক্ষা) জন্য এটি আইন মন্ত্রণালয়ের লেজিসলিটিভ ও সংসদবিষয়ক বিভাগে পাঠানো হয়। ভেটিংয়ের পর এটি গত সপ্তাহে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পাঠানো হয়।

বৈঠকে এছাড়াও মন্ত্রিসভা-বৈঠকে গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের বিষয়ে ২০১৮ সালের তৃতীয় ত্রৈমাসিক (জুলাই-সেপ্টেম্বর) প্রতিবেদন উপস্থাপন করা হয়, ‘ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন (নিয়ন্ত্রণ) (সংশোধন) আইন, ২০১৮’-এর খসড়ার চুড়ান্ত অনুমোদন, বাংলাদেশ জাতীয় সমাজকল্যাণ পরিষদ আইন, ২০১৮’-এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান অ্যাভিয়েশন অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয় আইন, ২০১৮’-এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন, ‘জাতীয় তথ্য যোগাযোগ প্রযুক্তি নীতিমালা-২০১৮’-এর খসড়ার অনুমোদন, ‘জাতীয় টেলিযোগাযোগ নীতিমালা-২০১৮’-এর খসড়া চূড়ান্ত অনুমোদন দেয়া হয়।

প্রসঙ্গত, আসন্ন একাদশ সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করতে সংশোধিত গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশের (আরপিও) খসড়ায় নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। যদিও বিএনপিসহ অধিকাংশ রাজনৈতিক দল সংসদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারের বিরোধিতা করে আসছে।