আরো দুটি শিক্ষা বোর্ড হচ্ছে দেশে

প্রকাশিত: ৫:৩১ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০১৮ | আপডেট: ৫:৩১:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০১৮

দেশে আরো দুটি শিক্ষা বোর্ড  গঠন করা হচ্ছে। তাদের নামকরণ করা হয়েছে ‘প্রাথমিক শিক্ষা বোর্ড এবং উপ-আনুষ্ঠানিক শিক্ষা বোর্ড’।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ে সদ্য যোগদানকারী সচিব মো: আকরাম আল হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মো: আকরাম আল হোসেন বলেন, প্রাথমিক এবং উপ-আনুষ্ঠানিক শিক্ষার পরিধি দিন দিন বাড়ছে। অধিদপ্তর ও শিক্ষা ব্যুরোর মাধ্যমে এ দু’টি পর্যায়ের শিক্ষার গুণগত মান নিশ্চিত করা, পাঠ্যক্রম ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রণ-পরিচালনা এবং ব্যবস্থাপনা সঠিকভাবে হচ্ছে না। প্রশাসনিক শৃঙ্খলা নিশ্চিতকরণ এবং নীতি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন নিশ্চিত করার দায়িত্ব হচ্ছে অধিদপ্তর ও পরিদপ্তরের। পরীক্ষা পরিচালনা ও সনদ বিতরণ তাদের দায়িত্বের মধ্যে পড়ে না।

সচিব আরো জানান, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর (ডিপিই) এবং উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরোকে পৃথক শিক্ষা বোর্ড গঠনের জন্য প্রস্তাব পাঠানোর নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। মন্ত্রণালয়সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকেও ‘প্রাথমিক শিক্ষা বোর্ড’ গঠনের বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে।

উপ-আনুষ্ঠানিক শিক্ষা বোর্ডের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে সচিব বলেন, বর্তমানে উপ-আনুষ্ঠানিক শিক্ষার ধরন ও কৌশল পাল্টেছে। এখন উপ-আনুষ্ঠানিক শিক্ষায় শুধু বয়স্কদের নাম স্বাক্ষর শিক্ষা দেয়া হয় না। তাদের জীবনমুখী শিক্ষা দেয়া হচ্ছে। তারা যাতে কর্মজীবনে কিছু না কিছু করে জীবন ধারণের উপযোগী হতে পারেন, সে শিক্ষা দেয়া হচ্ছে। তাই তাদেরও যোগ্যতাভিত্তিক সনদ দেয়া হবে।

প্রাথমিকের সমাপনী পরীক্ষা বাতিল হবে কি না এবং প্রাথমিক শিক্ষা অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত হলে পঞ্চমের সমাপনী পরীক্ষা চলবে কি নাম জানতে চাইলে সচিব বলেন, সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায়ের নির্দেশনার আলোকেই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। ততক্ষণ পর্যন্ত এ পরীক্ষা চালু রয়েছে ও চলবে।