এবারও ঈদ জামাত হয়নি শোলাকিয়ায়

প্রকাশিত: ১:৪৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ২১, ২০২১ | আপডেট: ১:৪৪:অপরাহ্ণ, জুলাই ২১, ২০২১
শোলাকিয়া ঈদগাহ ময়দান। ছবি: সংগৃহীত

এবারও ঈদুল আজহার জামাত হয়নি কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায়। চলমান করোনা পরিস্থিতির কারণে জেলা প্রশাসক ও শোলাকিয়া ঈদগাহ পরিচালনা কমিটির এবারও ঈদ জামাত না করার সিদ্ধান্ত নেয়।

নরসুন্দা নদী তীরের সুপ্রাচীন কিশোরগঞ্জের ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ময়দানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে ১৭৫০ সাল থেকে। শোলাকিয়া ঈদগাহের বয়স ২শ’ ৭১ বছর। প্রতিষ্ঠার ৭৮ বছর পর ১৮২৮ সালে প্রথম বড় জামাতে এই মাঠে একসঙ্গে ১ লাখ ২৫ হাজার অর্থাৎ সোয়ালাখ মুসল্লি ঈদের নামাজ আদায় করেন।

এই সোয়ালাখ থেকে এ মাঠের নাম হয় ‘সোয়ালাখিয়া’, যা উচ্চারণ বিবর্তনে হয়েছে শোলাকিয়া। করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে গত বছর প্রথমবারের মতো ঈদের দিন মুসল্লিবিহীন থাকে শোলাকিয়া ঈদগাহ ময়দান। গত বছর পবিত্র ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা দুই ঈদেই শোলাকিয়ায় ঈদজামাতের আয়োজন করা হয়নি।

করোনা সংক্রমণজনিত পরিস্থিতি বজায় থাকায় এ বছরেরও ঈদুল ফিতরে ঐতিহাসিক এই ময়দানে ঈদজামাতের আয়োজন করা হয়নি।

বর্তমানে করোনাভাইরাসে উর্ধ্বমুখী সংক্রমণের কারণে এবার ঈদুল আজহাতেও শোলাকিয়া ঈদজামাত অনুষ্ঠিত হচ্ছে না। কিশোরগঞ্জ জেলায় করোনা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক হওয়ায় শোলাকিয়া ঈদগাহ ময়দানসহ সারা জেলার কোনও খোলা জায়গা এবং ময়দানে ঈদ জামাত নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

কিশোরগঞ্জে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শামীম আলমের সভাপতিত্বে জুমে অনুষ্ঠিত শোলাকিয়া ঈদগাহ ময়দান কমিটির এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৃহত্তম জামাতের হিসাব অনুযায়ী, এবার শোলাকিয়া ঈদগাহে ১৯৪তম ঈদুল আজহার জামাত অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।