কেন মন্ত্রিসভায় রাখা হলো না, জানতে চান রাশেদ খান মেনন

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ৭:২২ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৭, ২০১৯ | আপডেট: ৭:২২:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৭, ২০১৯
রাশেদ খান মেনন। ফাইল ছবি

একাদশ জাতীয় সংসদের নতুন মন্ত্রিসভায় জোটের শরীকদের না থাকার বিষয়ে জানতে চাওয়া হবে বলে জানিয়েছেন সদ্য বিদায়ী সমাজকল্যাণ মন্ত্রী ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন।

আজ সোমবার সচিবালয়ে শেষ কর্মদিবসে বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

রাশেদ খান মেনন বলেন, ‘কথা ছিল আন্দোলন, নির্বাচন আর সরকার নিয়ে। কিন্তু শরিকদের বিষয়টি বিবেচনায় নেওয়া হয়নি। এ বিষয়টি নিয়ে আমরা আলোচনা করবো। ব্যাখ্যাও হয়তো চাওয়া হতে পারে।’

রাশেদ খান মেনন বলেন, ‘১৪ দলের সমন্বয়কের কাছে ব্যাখ্যা চাওয়া হবে, কেন মন্ত্রিসভায় রাখা হলো না।’

তিনি জানিয়েছেন, শরিকরা কেন মন্ত্রিসভায় নেই সেই ব্যাখ্যা চাওয়া হলেও কোনো দাবি থাকবে না।

মন্ত্রিসভার আকার শিগগিরই বড় করা হলে ১৪ দলের শরিকদের রাখা হবে কিনা জানেত চাইলে মেনন বলেন, ‘সেটা তো অপমান করা। আমার মনে হয় এক দেড় বছরের মধ্যে মন্ত্রিসভা পুনর্গঠন করা হবে না।’

বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে রাশেদ খান মেনন নতুন মন্ত্রিসভার সদস্যদের স্বাগত জানিয়ে বলেন, ‘নতুনরা ভালো করবেন।’

বঙ্গভবনে শপথ গ্রহণ শেষে নতুন মন্ত্রিসভায় জোটের শরীকদের না থাকার বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘শরীকরা আমাদের সঙ্গে রয়েছেন। মন্ত্রী না হলে তারা থাকবেন না এমন নয়। ভবিষ্যতের মন্ত্রিসভা রিশাফলিং হবে। সময়ে সময়ে চাহিদা অনুযায়ী পরিবর্তনও হতে পারে। শরীকরা এখন নেই, ভবিষ্যতে আসবে না এমন নয়।’