জেএসসি পরীক্ষার্থীদের আগামীকাল আগেভাগে রওনা হওয়ার পরামর্শ ডিএমপির

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:১১ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ৩, ২০১৮ | আপডেট: ১২:১১:পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ৩, ২০১৮

টিবিটি মেট্রোঃ রোববার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে কওমি মাদ্রাসার শিক্ষার্থীদের ‘শোকরানা মাহফিল’ থাকায় যানবাহন চলাচলের বিষয়ে বিশেষ নির্দেশনা দিয়েছে পুলিশ।

পরীক্ষা শুরুর সময় সকাল ১০টা হলেও প্রশ্নফাঁস রোধে কড়াকড়ির কারণে এমনিতেই পরীক্ষার্থীদের নির্ধারিত সময়ের ৩০ মিনিট আগে কেন্দ্র প্রবেশের নিয়ম করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। রোববার সকালে সোহরাওয়ার্দীতে ওই সমাবেশের কারণে পরীক্ষার্থীদের আরও আগে বের হওয়ার প্রয়োজন হতে পারে।

সেদিন জেএসসিতে ইংরেজি এবং অনিয়মিতদের ইংরেজি প্রথম পত্রের পরীক্ষা থাকায় ঢাকা মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের আশপাশের কেন্দ্রের পরীক্ষার্থী ও অভিভাবকদের ‘পর্যাপ্ত সময়’ হাতে নিয়ে বের হওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে ডিএমপি নিউজ।

কওমি মাদ্রাসার দাওরায়ে হাদিসের সনদকে ডিগ্রির স্বীকৃতি দিয়ে সংসদে আইন পাস হওয়ায় এই কর্মসূচির আয়োজন করেছে কওমির ছয় বোর্ডের সমন্বিত সংস্থা আল-হাইয়াতুল উলয়া লিল জামিয়াতিল কওমিয়্যাহ বাংলাদেশ।

রোববার সকাল ১০টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও হেফাজতে ইসলামের আমির আহমদ শফীর উপস্থিতে এ কর্মসূচির উদ্বোধন হবে ।

ওই দিন অনুষ্ঠানস্থলে আগতদেরকে নীলক্ষেত, সায়েন্সল্যাব, মতিঝিল, হাতিরঝিল, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জিমনেশিয়াম মাঠ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্বরে গাড়ি রেখে পায়ে হেঁটে অনুষ্ঠানস্থলে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছে মহানগর পুলিশ।

এছাড়া কোনো ধরনের হ্যান্ডব্যাগ, ট্রলি ব্যাগ, দাহ্য পদার্থ বা ধারালো বস্তু বহন না করতে অনুরোধ করা হয়েছে।

ডিএমপি জানিয়েছে, ‘শোকরানা মাহফিল’ উপলক্ষে শাহবাগ থেকে মৎস্যভবন পর্যন্ত সড়ক জনসাধারণের চলাচলের জন্য বন্ধ থাকবে। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের চারদিকের রাস্তায় যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

যান চলাচলের নির্দেশনা

# বাংলামটর, হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টাল, শাহাবাগ, কাঁটাবন, নীলক্ষেত, পলাশী, বকশীবাজার, চাঁনখারপুল, গোলাপশাহ মাজার, জিরো পয়েন্ট, পল্টন, কাকরাইল চার্চ, অফিসার্স ক্লাব, মিন্টু রোড ক্রসিংয়ে গাড়ি ঘুরিয়ে দেওয়া হতে পারে।

# গাবতলী, মিরপুর রোড হয়ে আসা ব্যক্তিরা সায়েন্সল্যাব-নিউ মার্কেট হয়ে নীলক্ষেতে নেমে পায়ে হেঁটে টিএসসি হয়ে বিভিন্ন গেইট দিয়ে উদ্যানে ঢুকবেন। তাদের বাস বিশ্ববিদ্যালয়ের মল চত্বর এবং নীলক্ষেত থেকে পলাশী পর্যন্ত রাস্তার দুই পাশে এক লাইনে রাখতে হবে।

# উত্তরা থেকে এয়ারপোর্ট রোড হয়ে মহাখালী-মগবাজার-কাকরাইল চার্চ- রাজমনি ক্রসিং- নাইটিংগেল- পল্টন মোড়- জিরো পয়েন্ট অথবা খিলক্ষেত ফ্লাইওভার- বাড্ডা- গুলশান- রামপুরা রোড- মৌচাক ফ্লাইওভার-মালিবাগ- শান্তিনগর- রাজমনি ক্রসিং- নাইটিংগেল হয়ে পল্টনমোড়/জিরোপয়েন্ট হয়ে আসা ব্যক্তিরা পল্টন মোড়/জিরো পয়েন্টে নেমে পায়ে হেঁটে দোয়েল চত্বর হয়ে উদ্যানের বিভিন্ন গেইট দিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে যাবেন। তাদের গাড়ি মতিঝিল এলাকায় রাখতে হবে। । মতিঝিল/গুলিস্থানে জায়গা না হলে প্রয়োজনে হাতিরঝিল এলাকায় রাখা যাবে।

# চট্টগ্রাম, সিলেট থেকে যাত্রাবাড়ী হয়ে এবং দক্ষিণাঞ্চল থেকে পোস্তগোলা হয়ে মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের উপর দিয়ে আসা ব্যক্তিরা গুলিস্থানে নেমে পায়ে হেঁটে জিরো পয়েন্ট- দোয়েল চত্বর হয়ে অনুষ্ঠানস্থলে যাবেন। তাদের বাস মতিঝিল/গুলিস্থান এলাকায় থাকবে।

# যারা মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের উপর দিয়ে চাঁনখারপুল হয়ে আসবেন, তারা চাঁনখারপুল নেমে পায়ে হেঁটে দোয়েল চত্বর হয়ে উদ্যানের বিভিন্ন গেইট দিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে প্রবেশ করবেন। তাদের বাস থাকবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জিমনেশিয়াম মাঠে।

# বাবুবাজার ব্রিজ হয়ে আসা ব্যক্তিরা গোলাপশাহ মাজারে নেমে পায়ে হেঁটে হাই কোর্ট-দোয়েল চত্বর হয়ে উদ্যানের বিভিন্ন গেইট দিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে যাবেন। তাদের বাস গুলিস্থান এলাকায় রাখতে হবে।