ডোমার সরকারি কলেজের প্রভাষকের উপর হামলার প্রতিবাদে ঢাবিতে মানববন্ধন

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১১:১২ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯ | আপডেট: ১১:১৩:অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী, ডোমার সরকারি কলেজ-নীলফামারী এর প্রভাষক, সোলায়মান আলীর উপর ছাত্র নামধারী সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে মানববন্ধন হয়েছে।

সকাল সাড়ে ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে নেটওয়ার্ক অব ইয়াং নীলফামারীয়ান এ মানববন্ধনের আয়োজন করে।

৭ সেপ্টেম্বর নীলফামারীর ডোমার সরকারী কলেজে এ মারধরের ঘটনায় ১৬ জনের বিরুদ্ধে ডোমার থানায় মামলা হলে নাজমুল, আলীম ও আল আমিন নামে ৩ জন গ্রেফতার হয়েছে।

মানববন্ধে বক্তারা হামলার মূল নেতৃত্বদানকারী শান্ত, সৈকত, মুন্না, হালিম সহ বাকিদেরও আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন। এ ঘটনায় শান্ত, সৈকত, মুন্না, হালিমকে বহিস্কার করেছে কলেজ কতৃপক্ষ।

মানববন্ধনে দেয়া বক্তব্যে ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন সংগঠনের সাধারন সম্পাদক রঞ্জন রায়। হামলাকারীদের ছাত্র নামে সন্ত্রাসী বলে অভিহিত করা হয়।

সহ-সভাপতি এ কে জিলানী বলেন, শিক্ষকের গায়ে হাত তোলা সারাদেশে মহামারী আকার ধারন করেছে। এ বিষয়ে এখনি জোরদার প্রশাসনিক ব্যবস্থা না নিলে অবস্থা আরো ভয়াবহ হবে।

মানববন্ধনে সংগঠনের সহ-সভাপতি নুর হোসেন, পিয়াল হাসান সহ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত নীলফামারীর শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।

৭ সেপ্টেম্বর একজন শিক্ষিকার বাংলা ক্লাসে মুন্না প্রশ্নের উত্তর দিতে না পারায় শফিকুল্লা নামে আরেক ছাত্র হাসি দিয়েছিল। এ জন্য ক্লাসের পরে মুন্নাসহ কয়েকজন মিলে শফিকুল্লাকে মারধর করে। এ খবর শুনে সেখানে মীমাংসা করতে গিয়ে ছাত্রদের হাতে মারধরের শিকার হন প্রভাষক সোলেমান আলী।

উল্লেখ্য, জনাব সোলেমান আলী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের সাবেক ছাত্র। ৩৬ তম বিসিএসে তিনি নিয়োগ পেয়েছেন।