পাকিস্তানকে সম্পদশালী করতে ব্যাপক বিনিয়োগের ঘোষণা এরদোয়ানের

টিবিটি টিবিটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:০৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৪, ২০১৯ | আপডেট: ১০:০৫:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৪, ২০১৯

তুরস্কের বৈদেশিক বিনিয়োগ বোর্ডের সঙ্গে শুক্রবার (তুরস্ক-পাকিস্তান অর্থনৈতিক পরিষদ) বৈঠক করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।

বৈঠকে পাক প্রধানমন্ত্রী বলেন, ১৯৭০ এর দশকে পাকিস্তান ‘ভুল পথে হেঁটেছে কারণ আমাদের সমাজতান্ত্রিক মানসিকতা ছিল যা সম্পদ গঠনের প্রতিবন্ধক হয়ে উঠেছিল।’ পরবর্তী দশকগুলোতে সমাজতান্ত্রিক শাসন ধীরে ধীরে আমলাতন্ত্রের মধ্যে মানসিকতা অর্জন করেছিল।

এরদোয়ান বলেন, তুরস্ক নিজেদের ব্যবসায়ীদের পাকিস্তানে বিনিয়োগ করতে উৎসাহিত করবে।

এ সময় ইমরান খান বলেন, তুরস্কের সঙ্গে পাকিস্তানের সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে।

সংবাদ সম্মেলনে আফগানিস্তানের সংকট নিয়েও কথা বলেন মুসলিম বিশ্বের এ দুই নেতা। সংবাদ সম্মেলনে এরদোয়ান ঘোষণা করেন- শীঘ্রই আফগানিস্তান ও পাকিস্তানকে নিয়ে ত্রিদেশীয় একটি সম্মেলন আয়োজন করবে তুরস্ক। কাশ্মীর ইস্যুতে শান্তিপূর্ণ সমাধানের জন্য ভারতের সঙ্গেও আলোচনার বিষয়েও কথা হয় ওই বৈঠকে।

ইমরান খান বলেন, পাকিস্তানের সঙ্গে তুরস্কের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের উচ্চতা এখন যে কোনো সময়ের চেয়ে বেশি। তিনি তুর্কি ব্যবসায়ীদের পাকিস্তানে নানা সুবিধা দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। তিনি বলেন, আমাদের দেশের মানুষকে আমি দারিদ্রমুক্ত করতে চাই।

সামরিক শক্তিতে মুসলিম বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী দেশ তুরস্ক ও পারমাণবিক শক্তিধর মুসলিম দেশ পাকিস্তান।