কমলগঞ্জে বাড়ির উঠানে মাটিতে পুতে রাখা স্ত্রীর লাশ উদ্ধার : স্বামী আটক

পিন্টু দেবনাথ পিন্টু দেবনাথ

কমলগঞ্জ( মৌলভীবাজার ) প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৭:০১ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৮, ২০২১ | আপডেট: ৭:০৩:অপরাহ্ণ, জুলাই ২৮, ২০২১

মৌলভীবাজারের স্ত্রীকে হত্যার পর নিজ বাড়ির উঠানে ৩৬ দিন লাশ পুঁতে রেখেছিল স্বামী। বুধবার ২৮ জুলাই সকালে মাটি খুঁড়ে লাশ উদ্ধারের পাশাপাশি হত্যাকারী স্বামীকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত সুচিত্রা শব্দকর ওই উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের পাত্রখোলা চা বাগানের পশ্চিম লাইনের সুবাস বাউরী ওরফে নুনুর স্ত্রী। এ দম্পতির এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

প্রাথমিকভাবে জানা যায়, পারিবারিক কলহের জেরে চলতি বছরের ২২ জুন নিখোঁজ হন সুচিত্রা শব্দকর। ৩৬ দিন পর বুধবার সকালে তার মেয়ে সীমা শব্দকর স্বীকার করেন- বাবার কুড়ালের হাতলের আঘাতে তার মায়ের মৃত্যু হয়। এরপর লাশ বাড়ির উঠানে পুঁতে ফেলে তার বাবা।

এদিকে ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে নিহতের স্বামী ওরফে সুবাস বাউরী ওরফে নুনু। পরে স্থানীয়রা তাকে পাত্রখোলা জামে মসজিদ এলাকা থেকে আটক করে গাছে বেঁধে রেখে পুলিশকে খবর দেয়।

পুলিশ জানিয়েছে, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে হত্যার দায় স্বীকার করেছেন সুবাস বাউরী ওরফে নুনু।

কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ ইয়ারদৌস হাসান এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।