‘বিজেপিতে’ মমতা! সদস্যকার্ড নিয়ে তোলপাড়

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:৩৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ১০, ২০১৯ | আপডেট: ১২:৩৪:অপরাহ্ণ, জুলাই ১০, ২০১৯
সংগৃহীত

নাম- মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজ্য- পশ্চিমবঙ্গ, তারপরই রয়েছে মেম্বারশিপ নম্বর। কার্ডের উপরে বড় বড় করে লেখা ‘ভারতীয় জনতা পার্টি’। তার নীচেই নয়া দিল্লিতে বিজেপি দফতরের ঠিকানা। কার্ডের ডানদিকে নীচের অংশে বিজেপির লোগো।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে বিজেপির এই সদস্যকার্ড ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। যা ঘিরে তুমুল চর্চা চলছে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতিতে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে বিজেপির ভুয়া সদস্যকার্ড বানানোর অভিযোগ উঠেছে।

বিষয়টি নজরে আসতেই কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছে মমতার দল। এ ঘটনায় দেশটির সাইবার সেলে অভিযোগ জানানো হবে বলে জানানো হয়েছে তৃণমূলের তরফে।

তৃণমূলনেত্রীর নামে ভুয়া সদস্যকার্ড বানানোর নেপথ্যে বিজেপিই জড়িত বলে অভিযোগ করেছে তৃণমূল। এ ঘটনায় অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করা হবে বলে জানিয়েছেন তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

মমতার নামে বিজেপির ভুয়া সদস্যকার্ডের প্রিন্ট আউট কপি দেখান পার্থ। এ প্রসঙ্গে বিজেপিকে নিশানা করে রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘‘কতটা নীচ নামলে এরকম করে একটা দল। আমরা ব্যবস্থা নেব। এটা গণতন্ত্রের পক্ষে অশুভ’’।

উল্লেখ্য, এর আগে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি বিকৃত করার অভিযোগ উঠেছিল বিজেপি যুব মোর্চা নেত্রী প্রিয়াঙ্কা শর্মার বিরুদ্ধে। যা ঘিরে বিস্তর টানাপোড়েন চলে বঙ্গ রাজনীতিতে। মেট গালায় বলিউড ডিভা প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার ছবিতে মমতার মুখ বসিয়ে ফেসবুকে পোস্ট করেছিলেন বিজেপি যুব মোর্চা নেত্রী প্রিয়াঙ্কা শর্মা।

এ ঘটনায় গ্রেফতার করা হয় হাওড়ার ওই বিজেপি যুব মোর্চা নেত্রীকে। পরে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়ে জামিন পান প্রিয়াঙ্কা। এ ঘটনায় বিজেপি যুব মোর্চা নেত্রীকে গ্রেফতার করা নিয়ে রাজ্য সরকারকে নোটিশ পাঠায় সুপ্রিম কোর্ট। ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।