বিনা প্রয়োজনে বের হওয়ায় আজও রাজধানীতে গ্রেফতার ৫৬৬

প্রকাশিত: ৭:৪৫ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৬, ২০২১ | আপডেট: ৭:৪৫:অপরাহ্ণ, জুলাই ২৬, ২০২১
ছবি: সংগৃহীত

করোনার সংক্রমণ রোধে ২৩ জুলাই থেকে সরকার কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করেছে। এ বিধিনিষেধের চতুর্থ দিনেও আইন মানার কোন লক্ষণই দেখা যাচ্ছে না অনেকের মাঝে।

আজ সোমবারও রাজধানীতে ৫৬৬ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। যৌক্তিক কারণ ছাড়া ঘর থেকে বের হওয়ার কারণে এদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়ে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)।

ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) ইফতেখায়রুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, গ্রেফতার ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানার বাইরেও ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ ৪৪৩টি গাড়ির বিপরীতে ১০ লাখ ২১ হাজার টাকা জরিমানা করেছে।

এর আগে ২৫ জুলাই ৫৮৭ জনকে গ্রেফতার করা হয়। ২৩০ জনকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে এক লাখ ৯৫০ টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া ট্রাফিক বিভাগ ৫২১টি গাড়ির বিপরীতে ১২ লাখ ৭২ হাজার টাকা জরিমানা করে।

২৪ জুলাই ৩৮৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়। ১৩৭ জনের ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৯৫ হাজার ২৩০ টাকা জরিমানা করা হয়। ট্রাফিক বিভাগের মাধ্যমে ৪৪১টি গাড়ির বিপরীতে ১০ লাখ ৮৩ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

আর ১৪ দিনের কঠোর বিধিনিষেধের প্রথম দিন (২৩ জুলাই) ৪০৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ২০৩ জনের এক লাখ ২৭ হাজার ২৭০ টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া ট্রাফিক বিভাগ ৪৪১টি গাড়ির বিপরীতে ১০ লাখ ৬০ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়।

ডিএমপি জানিয়েছে, এত গ্রেফতার আর জরিমানাতেও অকারণে বাইরে বের হওয়া মানুষের সংখ্যা কমছে না। বরং প্রতিদিন বাড়ছে এই সংখ্যা। মানুষ নিজের জায়গায় সচেতন না হলে ক্ষতিটা নিজের থেকে পরিবারের উপর গিয়ে পড়বে। সচেতন না হওয়ার জন্যই দিন দিন মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে।