লাশের বদলে লাশ!

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:৫৫ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১, ২০১৮ | আপডেট: ১২:৫৫:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১, ২০১৮
সংগৃহীত

হতভাগ্য দুই বোন সৌদি আরব থেকে যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে দেশটিতে আশ্রয়লাভের চেষ্টা করছিল। কিন্তু ওয়াশিংটনস্থ সৌদি দূতাবাস তাদেরকে আমেরিকা ত্যাগ করে সৌদি আরবে ফিরে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল বলে তাদের মা জানিয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক শহরের হাডসন নদী থেকে টেপ দিয়ে পরস্পরের সঙ্গে বাঁধা দুই সৌদি বোনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। হাডসন নদীতে ম্যানহাটান সিটির পশ্চিম তীরে গত ২৪ অক্টোবর ১৬ বছর বয়সি তালা ফারিয়া ও ২২ বছর বয়সি রোতানা ফারিয়া’র লাশ পাওয়া যায়। এখবর দিয়েছে পার্সটুডে।





নিউ ইয়র্কস্থ সৌদি কনস্যুলেট জেনারেল এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, দুই বোন তার এক ভাইয়ের সঙ্গে ওয়াশিংটনে বসবাস করছিল। দুই বোনের মৃত্যুর রহস্য উদঘাটনে সাহায্য করার জন্য সৌদি আরবের পক্ষ থেকে একজন আইনজীবী নিয়োগ করা হয়েছে বলে বিবৃতিতে জানানো হয়।

এক সপ্তাহেরও বেশি সময় আগে দুই সৌদি বোনের লাশ উদ্ধার করা হলেও এখন পর্যন্ত তাদের মৃত্যুর কোনো কুলকিনারা করতে পারছে না মার্কিন পুলিশ। সম্পূর্ণ পোশাক পরিহিত এবং পরস্পরের দিকে মুখ করে তাদের দেহ টেপ দিয়ে প্যাঁচানো ছিল। কীভাবে দুই বোনের মৃত্যু হয়েছে সে সম্পর্কেও এখনো কোনো সিদ্ধান্তে আসতে পারেনি মার্কিন পুলিশ।





তুরস্কের ইস্তাম্বুলস্থ সৌদি কনস্যুলেটে রাজতন্ত্র বিরোধী সাংবাদিক জামাল খাশোগির হত্যাকাণ্ড নিয়ে যখন রিয়াদ তীব্র আন্তর্জাতিক চাপের মুখে রয়েছে তখন আমেরিকায় আশ্রয়প্রার্থী দুই সৌদি বোনের অস্বাভাবিক মৃত্যুর খবর এল। সৌদি আরব অনেক নাটক শেষে খাশোগিকে হত্যার কথা স্বীকার করলেও এখনো ওই হত্যাকাণ্ডের ব্যাপারে বহু প্রশ্নের উত্তর পাওয়া যায়নি।