শোয়েব আখতারের একটি ফোনেই বেঁচে গেলো হাফিজের ক্যারিয়ার

প্রকাশিত: ৬:০৯ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০১৮ | আপডেট: ৬:০৯:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০১৮

আপাতদৃষ্টিতে শেষই হয়ে গিয়েছিল মোহাম্মদ হাফিজের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডও (পিসিবি) তাকে বাতিলের খাতায় ফেলে দিয়েছিল।

হতাশ হাফিজ নতুন করে কোনো স্বপ্ন দেখতে ভুলে গিয়েছিলেন। তখনই আবার ডাক এল জাতীয় দলে! অনেকটা মেঘ না চাইতে জলের মতো। কিন্তু হাফিজকে নিয়ে পিসিবি হয়তো নতুন করে আবার ভাবতই না, যদি শোয়েব আখতারের একটি ফোন না আসত।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে দুবাইয়ে চলমান টেস্ট সিরিজে জাতীয় দলে ডাক পাওয়া নিয়ে এক সাক্ষাতকারে হাফিজ নিজেই প্রকাশ করেছেন শোয়েব আখতারের সেই ফোন কলের কথা। হতাশ মোহাম্মদ হাফিজ এক পর্যায়ে ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দেওয়ার জন্য মানসিকভাবে প্রস্তুত হয়ে গিয়েছিলেন। সেই সময় খবর যায় ‘রাওয়ালপিণ্ডি এক্সপ্রেস’ খ্যাত পাকিস্তানের সাবেক গতি দানব শোয়েব আখতারের কাছে। তিনি ফোন করে হাফিজকে এমন সিদ্ধান্ত নিতে নিষেধ করেন।

হাফিজের ভাষায়, ‘গত কয়েক মাস ধরে আমি বেশ হতাশায় ভূগছিলাম। এক পর্যায়ে আমি কঠিন সিদ্ধান্ত (অবসর) নিয়ে ফেলার পরিকল্পনা করি। কিন্তু শেষ পর্যন্ত নেইনি। আমার স্ত্রী আমাকে সিদ্ধান্তটা নিতে দেয়নি। আলাদা করে বলব শোয়েব আখতারের কথা। বিরক্ত হয়ে আমি যখন কঠিন সিদ্ধান্তটা নেব, তখন উনি আমাকে ফোন করেন। বলেন ধৈর্য্য ধরতে।’

প্রায় দুই বছর পর জাতীয় দলে ফেরাটা ভাগ্যের খেলা হিসেবেই দেখছেন ৩৭ বছর বয়সী এই তারকা। ফেরাটাও হয়েছে অসাধাণ। দুর্দান্ত সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন। দলকে বসিয়ছেন চালকের আসনে। তিনি আরও বলেছেন, ‘আল্লাহই সেরা পরিকল্পনাকারী, তিনি আমার জন্য সেরাটাই পরিকল্পনা করেছেন। আমি দলে ফেরার পর খেলোয়াড়রা সবাই আমাকে অভিনন্দন জানিয়েছে। আমি খুবই ভাগ্যবান।’