সৌদিকে কোন ছাড় দেয়া হবে না: এরদোগান

টিবিটি টিবিটি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১:০৫ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৭, ২০১৮ | আপডেট: ১:৪৭:অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৭, ২০১৮

এছাড়া তাকে হত্যার নির্দেশ কে দিয়েছিল সেটাও জনসম্মুখে আনার কথা বলেছেন তিনি। শুক্রবার দেশটির পার্লামেন্টে দেয়া এক ভাষণে এরদোয়ান জানিয়ে দিলেন খাশোগি হত্যা ইস্যুতে রিয়াদকে বিন্দুমাত্রও ছাড় দেবে না আঙ্কারা।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান সৌদি আরবকে স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন, জামাল খাশোগির মরদেহ কোথায় আছে তার ঠিকানা জানাতে।

পার্লামেন্টে দেয়া ওই ভাষণে এরদোগান বলেন, ‘সৌদি আরবে যে ১৮ জনকে আটক করা হয়েছে তারা নিশ্চয়ই জানে কে খাশোগিকে হত্যা করেছে এবং তারা মরদেহে কোথায় সরিয়ে ফেলা হয়েছে। এই হত্যাকাণ্ডের নির্দেশদাতাকে ইস্তাম্বুলের আদালতে হাজির করে অবশ্যই তাকে বিচারের আওতায় আনা হবে।

সৌদি আরব প্রতিনিয়ত ঘটনার দায় নিয়ে যে নাটক করছে সেটা সত্যিই হাস্যকর। একটি জাতি রাষ্ট্রের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ কোনও আচরণ তারা করছে না বরং তারা যেটা বলছে সেটা শিশুসুলভ বিবৃতি।’

এরদোগান প্রশ্ন তুলে বলেন, ‘এ হত্যার নির্দেশ কে দিয়েছে? ১৫ জনের দলটিকে কে তুরস্কে আসার নির্দেশ দিয়েছে? তার লাশ কোথায় লুকিয়ে রাখা হয়েছে বা ফেলে দেয়া হয়েছে, সৌদি আরবকে তা জানাতে হবে।’

সৌদি যুবরাজ সালমানকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘যদি আপনার ওপর তোলা হত্যার অভিযোগ থেকে বাঁচতে চান তাহলে এই ১৮ জন ব্যক্তি হলো তার মূল চাবিকাঠি। আপনি জানেন মানুষ কিভাবে কথা বলছে।

যদি আপনি তাদের মুখ বন্ধ করতে চান তাহলে আটক ওই ব্যক্তিদের আমাদের হাতে হস্তান্তর করুন। যেহেতু ঘটনাটি ইস্তাম্বুলে ঘঠেছে সেহতেু এখানেই তাদেরকে বিচারের মুখোমুখি করা হবে।’

এছাড়াও এরদোয়ান সৌদি কে আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, ‘যে স্থানীয় সহচরের মাধ্যমে আপনারা খাশোগির মরেদেহ সরিয়ে ফেলেছেন তার পরিচয়টা আমাদেরকে দিন।’ এ হত্যার ঘটনা সম্পর্কে তুরস্ক যতটুকু তথ্য-প্রমাণ দিয়েছে তার চেয়ে বেশি তথ্য তাদের হাতে আছে বলেও সৌদিকে হুশিয়ার করেছেন তিনি।